1. muktirshongbad@gmail.com : 20dailymuktirshongbadbd.com :
  2. mdkaiumjsc01643@gmail.com : Kaium Hossain :
  3. ramjanbhuiyan84@gmail.com : ramjanbhuiyan :
রবিবার, ১৩ জুন ২০২১, ০৯:২১ পূর্বাহ্ন
নোটিশঃ
বহুল জনপ্রিয় দৈনিক মুক্তির সংবাদ অনলাইন পত্রিকায় সংবাদকর্মী নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে।  বাংলাদেশে বিভিন্ন জেলায়, উপজেলায়,দৈনিক মুক্তির সংবাদ পত্রিকা সংবাদকর্মী নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে। সারা বাংলাদেশে বিভিন্ন জেলায়, উপজেলায়, জেলা ব্যুরো প্রধান ও বিভাগীয় ব্যুরো প্রধানে কাজ আগ্রহী প্রার্থীগণ সিভি পাঠাতে পারেন। ন্যূনতম যোগ্যতা এস এস সি পাশ।চূড়ান্ত নির্বাচন প্রক্রিয়া:রিক্রুটিং টিম কোন প্রকার একাডেমিক পরীক্ষার ফল বিবেচনা করবে না। কর্মঠ, সৎ ও কর্তৃপক্ষের প্রতি অনুগত প্রার্থীদের বাছাই করা হবে।E-mail :  muktirshongbad@gmail.com যোগাযোগ নাম্বার:01752602939/01710006400 ।সম্পাদক ও প্রকাশক,মোঃ মাসুদ মৃধাঃ 01933609066

পাথরঘাটা রায়হানপুরে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের কটুক্তি, তদন্তের জন্য কমিটি গঠন, অনতিলম্বেই প্রতিবেদন জমা দেয়ার নির্দেশ

  • খবর পাবলিসের সময় রবিবার, ২২ নভেম্বর, ২০২০
  • ৫০ বার পোস্টটি পড়া হয়েছে

এইচ এমএম ইব্রাহীম খলীল-
বিশেষ প্রতিনিধিঃ- পাথরঘাটা।

বরগুনা জেলা পাথরঘাটা উপজেলার ১নং রায়হানপুর ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড কড়ইতলা গ্রামের বাসীন্দা মৃতঃ আব্দুছ ছোমেদ এর ছেলে দেলয়ার হোসেন (নবাব মিয়া ৭০) প্রতিবেশী বীর মুক্তিযোদ্ধা আলতাফ হোসেন এর মেয়ে মোসাঃ নাজমার সাথে গত ৭ নভেম্বর গাছ নিয়ে তর্কের সৃষ্টি হলে, নাজমা দেলয়ার হোসেন নবাবকে বলেন চাচা আমি একজন বীর মুক্তিযোদ্ধার সন্তান তাই আমাকে বাজে কথা বলবেন না।

এসময়ে দেলয়ার হোসেন উত্তেজিত হয়ে মুক্তিযোদ্ধাদের মা-বাপ তুলে অশ্লিল ভাষায় গালা-গালি করেন। পরে নাজমা বেগম পাথরঘাটা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর লিখিত অভিযোগ করলে, উপজেলা নির্বাহী অফিসার “সাবরিনা সুলতানা” পাথরঘাটা উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড এর ডেপুটি কমান্ডার এম এ খালেক প্রধানকরে এবং বরগুনা জেলা পরিষদের সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা জাহাঙ্গীর হোসেন জমাদ্দার, ও লোকাল চেয়ারম্যান সহ ৫ সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেন।
পরে ওই কমিটি ১৪ নভেম্বর শনিবার সরেজমিনে তদন্ত করতে গেলে উপস্থিত সংবাদ কর্মী সহ শতাধিক লোকের সামনে ঘটনার প্রতক্ষদর্শি দেলোয়ার হোসেন নবাবের বিরুদ্ধে আনা সকল অভিযোগেরর সত্যতা স্বীকার করে এবং সকলে বলেন দেলয়ার মুক্তিযোদ্ধার মা-বাপকে তুলে গালি দেওয়াসহ সে বর্তমান সরকারের বিরুদ্ধে বিভিন্ন বাজে কথা বলছে।
তারা বলেন দেলয়ার হোসেন মুক্তিযোদ্ধাদের উদ্দেশ্য করে বলেছেন এই সরকার কদিন আর ক্ষমতায় থাকবে। সরকার পতনের পরে তোদের মুক্তিযোদ্ধাদের একটা একাট ধরে পুতে ফেলব।

এসময়ে অভিযুক্ত দেলয়ার হোসেন সকলের সামনে বলেন যে, আমি মুক্তিযোদ্ধার মাকে তুলে গালি দিয়েছি, আমার ভূল হয়েছে- তাই আমাকে ক্ষমা করেন।

উপস্থিত অগনিত লোক দেলয়ার হোসেনের প্রতি সন্তুষ্ট না হয়ে বিচার দাবী করে এবং বলেন দেলয়ার হোসেন একজন রাজাকার। সে ১৯৭১ সনে পার্শ্ববতি হিন্দু গ্রামে মুক্তিযুদ্ধের সময় মুক্তিকামী অনেক মানুষের মালামাল লুটসহ অনেক মানুষের ওপর অত্যাচার করেছে। বর্তমানেও তাদের বাগিনাদের নিয়ে বিভিন্ন ভাবে এলাকায় দমক ও জোরপূর্বক বহু কাজ করে বেড়াচ্ছে।

এ ব্যাপারে আজ ২১ নভেম্বর শনিবার তদন্ত কমিটির অন্যতম সদস্য, বরগুনা জেলা পরিষদের সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা জাহাঙ্গীর হোসেন জমাদ্দার এর সাক্ষাৎ চাইলে সে বলেন স্থানীয় তদন্তে বীর মুক্তিযোদ্ধার মেয়ে নাজমা বেগম এর অভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে। স্থানীয় উপস্থিতি সকলের সামনে দোলোয়ার তার নিজের দোষ স্বীকার করেছে, কিন্ত তার এ স্বীকারে এলাকার লোক এবং উপজেলার সকল মুক্তিযুদ্ধারা কোন ভাবেই মেনে নিতে পারছে না, কারন দীর্ঘ নয়টি মাস নিজেদের জীবন বাজি রেখে যারা এই দেশের জন্য লড়েছেন, যাদের জন্য আজ আমরা এই স্বাধীন দেশ পেয়েছি, তাদের অপমান কোন ভাবেই মানা সম্ভব নয়।

সে আরো জানান যে, আগামী ২৫ নভেম্বরের মধ্যে, তদন্তের প্রতিবেদন চেয়ে আমাদের নির্দেশ করা হয়েছে, আমরা যথা সময়ে প্রতিবেদন জমা দিতে ব্যার্থ হবো না, দরকার হলে সকল মুক্তিযুদ্ধরা আন্দোলন করে, অতি দ্রুত অভিযুক্তকে আইনের আওতায় নেয়ার ব্যাবস্থা করা হবে বলে সে এই আশ্বাস জানান।

পোস্টটি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটেগরির আরও খবর